সংবাদ শিরোনাম :
«» যশোরের বেনাপোলে ছাত্রলীগ নেতার বাড়ি থেকে বোমা তৈরীর সরঞ্জম,ম্যাগজিন, গুলি ও মাদক উদ্ধার «» কালিয়াকৈরে ভাষা সৈনিক ও সাবেক মন্ত্রী সামসুল হকের মৃত্যুবাষির্কী উপলক্ষে আলোচনা ও দোয়া মাহফিল «» নবীনগর মেঘনা নদী ভাংঙ্গনরোধে অস্থায়ী প্রকল্প উদ্ধোধন «» টঙ্গীতে মাদক বিরোধী অভিযান «» কালিয়াকৈরে কৃষকের নিজ জমি থেকে গাছ কাটার অভিযোগ বন কর্মকর্তার বিরুদ্ধে «» আজ শ্রীলংকার বিপক্ষে সাকিবের খেলা অনিশ্চিত! «» কক্সবাজার বিমানবন্দরকে আন্তর্জাতিক মানে উন্নীত করার উদ্যোগ নিয়েছি: প্রধানমন্ত্রী «» ইয়াবা পাচারের বড় রুট রেল «» দুই দিনে ৯টি বুথে হানা দিয়ে তুলে নেয় ১৫ লাখ টাকা «» আসন্ন কলের বাজার ব্যবসায়ী সমিতির ত্রি বার্ষিক নির্বাচনে সকলের দোয়া ও ভোট প্রত্যাশি

বাংলাদেশ অবিশ্বাস্য খেলছে, সেমিতে উঠলে অবাক হবো না: কোহলি

দেশান্তর ডেস্ক ঃ

স্কোরেবোর্ডে লড়াই করার মতো পুঁজি ছিল না। ভালো সংগ্রহ এনে দিতে পারেননি ব্যাটসম্যানরা। অধিকন্তু উইকেটে ছিল ব্যাটিং সহায়ক। মরার উপর আবার খাঁড়ার ঘা-গুরুতর ভুল করে বসেন উইকেটরক্ষক মুশফিকুর রহিম। সব মিলিয়ে ধরেই নেয়া হয়েছিল, নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে বড় ব্যবধানে হারবে বাংলাদেশ। টাইগাররার হেরেছেও। তবে বড় ব্যবধানে নয়। স্বল্প পুঁজি নিয়েও বুক চিতিয়ে লড়েছেন তারা। একে একে কিউদের পতন ঘটান ৮ উইকেটের। স্বাভাবিকভাবেই ছড়ায় উত্তেজনা, রোমাঞ্চ। শেষ পর্যন্ত ১৭ বল বাকি থাকতে ২ উইকেটের শ্বাসরুদ্ধকর জয় তুলে নেয় ব্ল্যাক ক্যাপসরা। তারা ম্যাচ জিতেছে ঠিকই। তবে ক্রিকেট সংশ্লিষ্টদের মন জয় করেছে মাশরাফিবাহিনী। নখ কামড়ানো ম্যাচ হারলেও লড়াকু মানসিকতার জন্য বিশ্বব্যাপী বাহ্বা পাচ্ছেন তারা। হেরে কিছুটা ব্যাকফুটে চলে গেলেও প্রশংসায় পঞ্চমুখ লাল-সবুজ জার্সিধারীরা। একের পর এক ক্রিকেট বিশ্বের রথী-মহারথীর প্রশংসা কুড়াচ্ছেন তারা। দেশের কোটি ক্রিকেটপ্রেমীর সমর্থন তো আছেই। মাঠে ও মাঠের বাইরে প্রবাসী সমর্থকরাও অকুণ্ঠ সমর্থন দিয়ে যাচ্ছেন। সবাই সোশ্যাল মিডিয়ায় বাংলাদেশকে নিয়ে সোচ্চার। তাদের বার্তায় স্পষ্ট, মাশরাফির দল এখন মোটেও কোনো সহজ প্রতিপক্ষ নয়। ইতিমধ্যে অনেকে তাদের ডার্ক হর্স হিসেবে আখ্যা দিয়েছেন। বাংলাদেশের লড়াকু পারফরম্যান্সের ভূয়সী প্রশংসা করছেন খোদ ভারতের বর্তমান অধিনায়ক বিরাট কোহলি। টুইটবার্তায় তিনি জানিয়েছেন, মাশরাফি-সাকিবরা অবিশ্বাস্য ক্রিকেট খেলছে। যদি তারা সেমিফাইনালে যায়, (শেষ চারে খেলার ছাড়পত্র পায় বা টিকিট কাটে) আমি মোটেও অবাক হবো না। এদিকে ম্যাচ শেষে মাশরাফি জানিয়েছেন, আমরা আশাহত নই। এখনো সাত ম্যাচ বাকি। আশা করি, শিগগির কামব্যাক করতে পারব। বাংলাদেশের পরের ম্যাচ ইংল্যান্ডের বিপক্ষে। আগামী শনিবার কার্ডিফের সোফিয়া গার্ডেনে ইংলিশদের মুখোমুখি হবে টাইগাররা। স্বাগতিকদের হারিয়ে তারা এখন ফ্রন্টফুটে ফের আসতে পারেন কি না-তাই দেখার।

Comments

comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *